পেন ড্রাইভ এর Write Protection রিমুভ করবেন কি ভাবে? - How to remove Write protection in pendrive?

পেন ড্রাইভ এর Write Protection রিমুভ করবেন কি ভাবে? - How to remove Write protection in pendrive?




পেন ড্রাইভ এর Write Protection রিমুভ করবেন কি ভাবে? যেহেতু লিখায় রয়েছে write protected কাজেই এইটা ডিজেবল করতে হবে এর জন্য একাধিক উপায় রয়েছে ! তবে,আমি তারমধ্যে কয়েকটি সহজ উপায় বলছি।
১. Disbale/enable write protection" নামক সফটওয়্যার টা ইনস্টল করে শুধু ডিসএবল ক্লিক করে পিসি রিস্টার্ট করুন আশা করি কাজ হবে। আর নাহলে কমেন্টে জানাবেন ধন্যবাদ I

২.অনেক সময় ভাইরাস থাকার কারণে পেনড্রাইভে ঢোকা যায় না। Pendrive is Write Protected বার্তা আসে। ফলে পেনড্রাইভ ফরম্যাটও হয় না। এর সমাধানে পেনড্রাইভ ইউএসবি পোর্টে যুক্ত করে CTRL+R চেপে Run-এ যান অথবা windows key+R regedit লিখে এন্টার করুন। এবার HKEY_LOCAL_MACHINE > SYSTEM > CurrentControlSet > Control > StorageDevicePolicies-এ যান। উইন্ডোজে যদি StorageDevicePolicies না থাকে, তবে Control পর্যন্ত গিয়ে Control-এ ডান ক্লিক করুন। New থেকে Key নির্বাচন করুন। এখানে StorageDevicePolicies লিখে এন্টার করলে কি তৈরি হয়ে যাবে। এবার ডান দিকে ডান ক্লিক করে New থেকে ৩২-বিট উইন্ডোজের জন্য DWORD (32-bit) value এবং ৬৪-বিটের জন্য DWORD (64-bit) value-তে ক্লিক করে এটির নাম WriteProtect লিখে দিন। WriteProtect-এ দুই ক্লিক করে Value Data Box-এ 0 (শূন্য) লিখে ওকে করুন। এবার স্টার্ট মেনুতে cmd লিখুন। cmd এলে এতে ডান ক্লিক করে Run as administrator চেপে খুলুন। এরপর এখানে diskpart লিখে এন্টার করুন। আবার list disk ও এন্টার। তালিকায় আপনার পেনড্রাইভ দেখালে select disk K: (এখানে K: হচ্ছে পেনড্রাইভের ড্রাইভ লেটার) আপনার পেনড্রাইভের ড্রাইভ লেটার জেনে নিয়ে K:-এর স্থলে সেটি লিখে এন্টার করুন। এরপর attributes disk clear readonly লিখে এন্টার। আবার clean লিখে এন্টার করুন। পরেরবার create partition primary লিখে এন্টার। শেষে format fs=fat32 লিখে এন্টার করুন। কম্পিউটার পুনরায় চালু (রিস্টার্ট) করে পেনড্রাইভ ফরম্যাট করুন। আরেক পদ্ধতি: ওপরের নিয়মে কাজ না হলে আপনার পেনড্রাইভের ড্রাইভ লেটার (যেমন, K ) জেনে নিন। পেনড্রাইভ কম্পিউটারে লাগিয়ে বন্ধ (শাটডাউন) করুন। আবার কম্পিউটার চালুর বোতাম চেপে দ্রুত F8 চেপে ধরুন। Advanced Boot Options চলে আসবে। Safe Mode with Command Prompt নির্বাচন করে এন্টার করুন। এরপর কমান্ড প্রম্পট চালু হবে। এখানে পেনড্রাইভের ড্রাইভ লেটার K: লিখে এন্টার করুন। পরেরবার আবারও format K: লিখে এন্টার করুন। পেনড্রাইভ ফরম্যাট করতে চান কি না, সেটি জানতে Y/N কি চাপতে বলবে। তাই এখানে Y লিখে আবারও । তাই এখানে Y লিখে আবারও এন্টার করলে পেনড্রাইভ ফরম্যাট হতে থাকবে।

৩.কমান্ড প্রমটে (cmd) রাইট বাটনে ক্লিক করে Run as Administrator হিসেবে ওপেন করুন।উইন্ডো চালু হলে diskpart লিখে enter চাপুন। ডিস্কপাট অবস্তায় এলে list disk লিখে enter চাপুন এতে আপানার সিস্টেমে সে সব ড্রাইভ যুক্ত আছে তাদের লিস্ট সাইজ সহ দেখাবে সাধারনত আপানার ডিস্ক Disk 0 যার সাইজ গিগাবাইটে হবে আর নিচে Disk 1 or Disk 2 গুলো আপনার পেনড্রাইভ যার সাইজ মেগাবাইট আকারে দেখাবে। এখন আপনার পেনড্রাইভটি সঠিক ভাবে সিলেক্ট করতে হবে যদি আপনার ড্রাইভ Disk 1 হয় তবে লিখুন select disk 1 লিখে enter চাপুন তারপর clean লিখে enter চাপুন। এবার create partition primary লিখে enter চাপলে পার্টিশন তৈরি হবে। এবার format fs=fat32 লিখে enter চাপুন এতে আপনার পেনড্রাইভ ফরমেট হতে শুরু করবে। তার পর active লিখে enter চাপুন তারপর Exit লিখে বের হয়ে আসুন। আশা করছি আজ হবে।

৪.পেনড্রাইভ টি পিসিতে কানেক্ট করুন । খেয়াল রাখুন, হার্ড ড্রাইভের অন্যান্য ডিস্কের মতো পেনড্রাইভ বা মেমোরি কার্ড দেখালেও সেটিতে প্রবেশ করা যাবে না। এবার আপনার উইন্ডোজের স্টার্ট মেন্যুতে গিয়ে cmd লিখুন। এতে আপনার স্টার্ট মেনুর ওপরের দিকে কমান্ড প্রম্পট (cmd) দেখা যাবে। এখন এর ওপর ডান বোতাম চেপে Run as administrator সিলেক্ট করে সেটি খুলুন। কমান্ড প্রম্প্ট চালু হলে এখানে chkdsk mr লিখে enter ক্লিক করুন। এখানে m হচ্ছে পেনড্রাইভ বা মেমোরি কার্ডের ড্রাইভ। কম্পিউটারে পেন ড্রাইভ বা মেমোরি কার্ডের ড্রাইভ দেখতে পেলে এখানে ‘চেক ডিস্ক’ কমপ্লিট হতে দিন। এখানে convert lost chains to files বার্তা এলে y টিপুন। এ ক্ষেত্রে ফাইল ঠিক থাকলে কার্ডের তথ্য আবার ব্যবহার করা যাবে। পেনড্রাইভ বা মেমোরি কার্ড যদি invalid file system দেখায় তাহলে সেটির ড্রাইভের ডান ক্লিক করে Format-এ ক্লিক করুন। File system থেকে FAT নির্বাচন করে Quick format-এর টিক চিহ্ন তুলে দিয়ে Format-এ ক্লিক করুন। ফরম্যাট সম্পন্ন হলে পেনড্রাইভ বা মেমোরি কার্ডের তথ্য হারালেও পেন ড্রাইভ বা মেমোরি কার্ড নষ্ট হবে না।

৫.প্রথমে আপনার উইন্ডোজের START এ কিল্ক করে RUN এ গিয়ে cmd লিখে enter চাপুন। তারপর Command Prompt চালু হবে।এখন আপনার স্বাদের কম্পিউটারে Corrupted পেনড্রাইভ বা মেমোরি লাগান। ১ নং ধাপ – এখন প্রথমে টাইপ করুন একসাথে ( diskpart ) তারপর enter চাপুন। ২ নং ধাপ – অবার টাইপ করুন ( list disk ) এখন আপনার ড্রাইভ শো করবে। দেখুন আপনার Corrupted পেনড্রাইভ, মেমোরির ড্রাইভ কোনটা । ৩ নং ধাপ – যদি disk 1 বা disk 2 হয় তাহলে যথাক্রমে ( select disk 1 বা select disk 2 ) টাইপ করুন এবং enter চাপুন। ৪ নং ধাপ – এখন ( clean ) লিখে enter প্রেস করুন। ৫ নং ধাপ – টাইপ করুন ( create partition primary ) লিখে enter প্রেস করুন। ৬ নং ধাপ – টাইপ করুন ‍( active ) লিখে enter প্রেস করুন। ৭ নং ধাপ – টাইপ করুন ‍( select partition 1 ) লিখে enter প্রেস করুন। ( আপনার ড্রাইভ অনুয়ায়ী আগেই বলেছি যথাক্রমে) ৮ নং ধাপ – টাইপ করুন ( format fs=fat32 ) লিখে enter প্রেস করুন। আপনি চাইলে fat32 এর বদলে ntfs ফরমেটে ফরমেট দিতে পারেন। ব্যাস আপনার কাজ শেষ এখন Corrupted পেনড্রাইভ বা মেমোরি ফরমেট হতে থাকবে। 100% হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। 100% হলে ‍Successfully দেখাবে এখন ( exit ) লিখে enter প্রেস করলে Command Prompt বন্ধ হবে । এখন My computer ওপেন করে দেখুন ঠিক হয়ে গেছে।

নানাভাবে এমন অকেজো পেনড্রাইভ সচল করা গেলেও সম্পূর্ণভাবে ক্ষতিগ্রস্ত এবং বাহ্যিকভাবে নষ্ট প্রায় কার্ডকে ঠিক করতে ডেটা রিকভারি সফটওয়্যার ব্যবহার করতে হবে। মেমোরি কার্ডের তথ্য দেখা যাচ্ছে, কিন্তু সেটি ব্যবহার করা না গেলে আপনাকে এই সফটওয়্যার সমাধান দিতে পারে। এ ক্ষেত্রে ডেটা উপস্থিত থাকে। কিন্তু কম্পিউটার বা অন্য যন্ত্র সেটিকে ‘রিড’ করতে পারে না।


MR Laboratory Public Blog

আমাদের এই ব্লগে আপনি ও  লিখতে পারবেন । এর জন্য আপনি আপনার লিখা আমাদেরকে ইমেইল করতে পারেন । অথবা আমাদের একজন সদস্য হয়ে ও পোস্ট করতে পারবেন । 

আমাদের ওয়েবসাইট এর সদস্য হতে চাইলে ভিসিট করুন । 

আপ্বনার লিখা অবস্যয় শিক্ষনীয় হতে হবে ।
আমাদের ইমেইল ঠিকানা
[email protected]


Next Post Previous Post
No Comment

You cannot comment with a link / URL. If you need backlinks then you can guest post on our site with only 5$. Contact

Add Comment
comment url