লাইভস্ট্রিমিং ফিচার নিয়ন্ত্রণের ঘোষণা ফেসবুকের। সতর্ক থাকুন সবসময়। facebook livestreaming!

    বন্ধুরা, সবাইকে শুভেচ্ছা। আশা করছি সবাই ভালোই আছেন। রমজানের পুরো সময়টাতে ইবাদত-বন্দেগীতে ব্যস্ত থাকার পাশাপাশি নেট সার্ফিং অব্যাহত রেখেছেন। এখন সময়টাই এমন যে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক, টুইটার ছাড়া যেনো একটি দিনও চলে না আমাদের। আজ যে টিউন নিয়ে হাজির হয়েছি সেখানে কথা বলবো ফেসবুকের লাইভস্ট্রিমিং ফিচার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে।
    নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামলার ঘটনায় এবার লাইভস্ট্রিমিং ফিচারটি নিয়ন্ত্রণের ঘোষণা দিয়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক। সহিংসতার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে ১৫ মে থেকে এই ফিচার ব্যবহারে কড়াকড়ি আরোপের ঘোষণা দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

    এর আগে গেলো ১৫ মার্চ ক্রাইস্টচার্চে হামলার ঘটনাটি লাইভস্ট্রিমিং হওয়ার পর ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়ে ফেসবুক। বন্দুকধারী ব্রেনটন ট্যারান্ট মাথায় বসানো ক্যামেরার মাধ্যমে ভয়াবহ এই হামলাটি লাইভস্ট্রিমিং করেন। ওই হামলায় দুই মসজিদে ৫১ মুসল্লি নিহত হন।

    এদিকে এক লিখিত বিবৃতিতে ফেসবুকের ভাইস প্রেসিডেন্ট গাই রোজেন বলেছেন, নিউজিল্যান্ডে ভয়াবহ হামলার ঘটনার পর ক্ষতির উদ্দেশে বা বিদ্বেষ ছড়ানোর ক্ষেত্রে ফেসবুকের  সার্ভিস সীমাবদ্ধ করতে আরও কী কী করা যেতে পারে, তা নিয়ে পর্যবেক্ষণ চলছে।
    বড় পরিসরের অপরাধে ফেসবুক লাইভের ‘ওয়ান স্ট্রাইক’ নীতি প্রযোজ্য হবে। এই নীতি ভঙ্গ করলে এই ফিচার ব্যবহার নিষিদ্ধ করা হবে।

    বিবৃতিতে রোজেন বলছেন, কোনো জঙ্গিগোষ্ঠীর লিংক শেয়ার করাও অপরাধ বলে গণ্য হবে। তিনি বলেন, আমরা এই বিধিনিষেধ খুব শিগগির অন্যান্য ক্ষেত্রেও প্রয়োগ করার পরিকল্পনা করছি। ফেসবুকে বিজ্ঞাপন তৈরিতে ওই ব্যক্তিদের প্রতিরোধ করার মধ্য দিয়ে এই প্রক্রিয়া শুরু হচ্ছে।

    অনেক ব্যবহারকারী ফিল্টার এড়াতে নিউজিল্যান্ডের হামলার ভিডিও সম্পাদন করে ছড়িয়েছেন। এ ধরনের বিষয়গুলো ঠেকাতে নতুন প্রযুক্তি যুক্ত করা প্রয়োজন। এ প্রসঙ্গে রোজেন আরো বলেন, হামলার পরের কয়েক দিন ভিডিওর বিভিন্ন রূপের বিস্তার নিয়ে চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছিল ফেসবুক।

    সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক জানিয়েছে, ছবি ও ভিডিও বিশ্লেষণ ও প্রযুক্তি উন্নয়নে গবেষণার জন্য ৭৫ লাখ মার্কিন ডলার ব্যয়ে তিন মার্কিন বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে কাজ করছে তারা।

    আজকের এই টিউন যদি আপনাদের এতোটুকু উপকারে আসে, তবেই আমাদের শ্রম স্বার্থক। এজন্য নিজেকে আপডেট রাখতে, থাকতে হবে টিউনরাউন্ডের সঙ্গেই। শিগগিরই আসবো নতুন কোনো টিউন নিয়ে। আশা করি আপনাদের সঙ্গেই পাবো।



    from TuneRound.Com - Know for sharing | Bangladeshi community. http://bit.ly/2VyG08k
    via Tuneround
    Copyright © MR Laboratory
    Newer post Older post

    RELATED ARTICLES